» দেশে ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ আক্রান্ত, মৃত্যু ২৩

Published: ২৯. মে. ২০২০ | শুক্রবার

নিজস্ব প্রতিবেদক:

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরো দুই হাজার ৫২৩ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। যা একদিনের আক্রান্তের পরিসংখ্যানে সর্বোচ্চ। এ নিয়ে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে ৪২ হাজার ৮৪৪ জনে দাঁড়িয়েছে। একই সময়ে মারা গেছেন আরো ২৩ জন। এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ৫৮২জন।
শুক্রবার দুপুর আড়াইটায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে অনলাইনে দৈনন্দিন স্বাস্থ্য বুলেটিনে এ তথ্য জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

বুলেটিনে বলা হয়, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘণ্টায় ৪৯টি ল্যাবে ১১ হাজার ৩০১টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে আরো দুই হাজার ৫২৩ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। ফলে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪২ হাজার ৮৪৪ জনে।

আক্রান্তদের মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ২৩ জন। যাদের মধ্যে ১৯ জন পুরুষ এবং ৪ জন মহিলা। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৫৮২ জনে।

বয়সভিত্তিক বিশ্লেষণে- ১১ থেকে ২০ বছর বয়সের মধ্যে এক জন, ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সের মধ্যে এক জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে দুই জন, ৪১ থেকে ৫০ বছর বয়সের মধ্যে পাঁচ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে পাঁচ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ছয় জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে দুই জন এবং ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে এক জন। এদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ১০ জন, চট্টগ্রামে ৯ জন, রংপুরে ২ জন, বরিশালে দুই জন ও সিলেট বিভাগে এক জন মারা গেছেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৫৯০ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। এ নিয়ে মোট ৯ হাজার ১৫ জন সুস্থ হলেন।

দেশে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত (কোভিড-১৯) প্রথম রোগী শনাক্ত হয় গত ৮ মার্চ। ১৮ মার্চ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়।

আন্তর্জাতিক জরিপকারী সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটার এর তথ্য অনুযায়ী, এখন পর্যন্ত মহামারি করোনাভাইরাসে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা ৩ লাখ ৬২ হাজার ৩৬৫। এছাড়া আক্রান্ত হয়েছেন ৫৯ লাখ ২০ হাজার ২৩১ জন। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২৫ লাখ ৯২ হাজার ২৪ জন।

close