বাজার করতে গিয়ে ফিরলেন বউ নিয়ে!

ঢাকা: বৈশ্বিক মহামারী করোনার জেরে সব জায়গায় নেমে এসেছে স্থবিরতা। এর মাঝেই শোনা যাচ্ছে অদ্ভুত সব খবর। যেমন লকডাউনের মধ্যেই এক যুবক মুদিখানার বাজার করতে বেরিয়ে স্ত্রী নিয়ে হাজির ঘরে। আকাশ থেকে পড়ার অবস্থা তার মায়ের। মা ছুটলেন থানায়। ভারতের উত্তরপ্রদেশে গাজিয়াবাদের সাহিবাবাদ থানা এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার সাহিবাবাদ থানায় গিয়ে হাজির হন এক মহিলা। বলেন, লকডাউনের মাঝে তার ছেলেকে বাজার করতে পাঠিয়েছিলেন। কিন্তু ছেলে বউ নিয়ে বাড়ি ফিরেছে। কিন্তু তিনি এখন এই সম্পর্ক মেনে নেয়ার অবস্থায় নেই। পুলিশও এমন অদ্ভুত কথা শুনে অবাক হয়ে যায়। কথা বলে ওই বছর ছাব্বিশের যুবক গুড্ডুর সঙ্গে।

গুড্ডু জানিয়েছে, মাস দু’য়েক আগেই তার বিয়ে হয়েছিল সাবিত্রীর সঙ্গে। তারা হরিদ্বারে এক আর্য সমাজ মন্দিরে বিয়ে করেছিলেন। কিন্তু সাক্ষীর অভাবে তারা ম্যারেজ সার্টিফিকেট পাননি। ঠিক করেন, পরে হরিদ্বার গিয়ে সার্টিফিকেট নিয়ে আসবেন। কিন্তু তার মাঝেই লক ডাউন শুরু হয়ে যায়।

হরিদ্বার থেকে ফিরে স্ত্রী সাবিত্রীকে দিল্লির একটি ভাড়া বাড়িতে রেখেছিলেন গুড্ডু। ভেবেছিলেন, সময় ও সুযোগ মতো বাড়ি নিয়ে আসবেন। কিন্তু তার মাঝেই লকডাউন শুরু হয়ে যায়। ফলে তাকে সেই পরিকল্পনা মুলতুবি রাখতে হয়। আবার সাবিত্রী যে বাড়িতে থাকতেন তার মালিক বাড়ি খালি করার কথা বলেছেন। বাধ্য হয়ে তিনি সাবিত্রীকে নিজের বাড়িতে নিয়ে আসেন গুড্ডু।

গুড্ডুর মা ছেলের বিয়ের বিষয়ে কিছুই জানতেন না, তিনি এই বিয়ে মানতে চাইছেন না। এই অবস্থায় সাহিবাবাদ পুলিশ একটি সমাধানের রাস্তা খুঁজে বের করেছে। তারা সাবিত্রীর বাড়ির মালিককে অনুরোধ করেছে, লকডাউনের সময় গুড্ডু ও সাবিত্রীকে যেন ওই বাড়িতে থাকতে দেয়া হয়।